ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৬ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ঈদে তিন সিনেমায় বড়দা মিঠু

মিডিয়াতে বড়দা মিঠু হিসেবেই পরিচিত তিনি। তিনি অভিনেতা মাহমুদুল ইসলাম মিঠু। তিন যুগের বেশি সময় ধরেই অভিনয় করছেন এই অভিনেতা। তবে শুধু টেলিভিশন পর্দায় নয় । ছোট পর্দার গণ্ডী পেরিয়ে এই অভিনেতা এখন ব্যস্ত সময় পার করছেন বড় পর্দার কাজ নিয়ে। এই ঈদে মুক্তি পাচ্ছে এই অভিনেতার তিনটি সিনেমা ‘মোনা-জ্বীন ২’, ‘লিপস্টিক’, ‘মায়া’ । এবারের ঈদে সিনেমা প্রেমী দর্শকদের আনন্দ দিতেই বড় পর্দায় তিন সিনেমা নিয়ে দর্শকদের সাথে আনন্দ ভাগাভাগি করে নিবেন এই অভিনেতা। তাছাড়াও রয়েছে ঈদের নাটকের ব্যস্ততা। এই ঈদে মিঠু অভিনীত প্রায় ২০টির মতো এক ঘন্টার নাটক প্রচারিত হবে বিভিন্ন টেলিভিশনে। মোশাররফ করিম, ফারহান , জোভান , তৌসিফ,সুজন, আরশ, সুপ্ত এর মত তারকার সাথে টেলিভিশনের পর্দায় থাকবেন এই অভিনেতা । এছাড়াও বিভিন্ন বড় বড় নাটক প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানের ইউটিউব চ্যানেলেও মুক্তি পাবে এই অভিনেতার নাটক।

অভিনেতা বড়দা মিঠু বলেন, অভিনয় ব্যস্ততা এখন অনেকটাই বেশি ।এই ঈদে আমার তিনটি সিনেমা মুক্তি পাচ্ছে। ‘মোনা-জ্বীন ২’, ‘লিপস্টিক’, ‘মায়া’। সিনেমাগুলো নিয়ে আমি বেশ আশাবাদী। প্রত্যেকটি সিনেমা তার স্ব স্ব অবস্থান থেকে দর্শক গ্রহণযোগ্যতা পাবে। আমি আমার অভিনয় দক্ষতা কাজে লাগিয়ে প্রত্যেকটি চরিত্র ফুটিয়ে তুলেছি। দর্শকদের সিনেমাগুলো দেখার আহ্বান থাকবে।

এই অভিনেতা আরও বলেন, এখন প্রচুর সিনেমার কাজের প্রস্তাব আসছে। ভালো গল্পকে প্রাধান্য দিচ্ছি। ভালো গল্প ও চরিত্র পেলে তবেই সম্মতি দিচ্ছি। তাছাড়াও আগামী মাস থেকে আমার নতুন সিনেমা ‘রঙ্গনা’র শুটিং শুরু হচ্ছে। এছাড়াও আরও বেশ কিছু কাজ আছে হাতে।

আসন্ন চলচ্চিত্র শিল্পী সমিতির নির্বাচন খুব সন্নিকটে। চলচ্চিত্র শিল্পীরা বেশ ব্যস্ত সময় পার করছেন নির্বাচন নিয়ে। এবারের নির্বাচনে দুইটি প্যানেল ঘঠিত হয়েছে। মিশা সওদাগর-ডিপজল প্যানেল ও মাহমুদ কলি- নিপুন আক্তার প্যানেল । দুই প্যানেলের প্রার্থীরা বেশ ব্যস্ত শিল্পীদের নিয়ে। চলচ্চিত্রের মুভিলর্ডখ্যাত ডিপজলের প্রসংশা করে আসন্ন শিল্পী সমিতির নির্বাচন প্রসঙ্গে বড়দা মিঠু বলেন, এবার নির্বাচন করার ইচ্ছা না থাকলেও শিল্পী সমিতির সদস্যদের জন্য নির্বাচনে এসেছেন ডিপজল ভাই।তিনি দায়বদ্ধতার জায়গা থেকে প্যানেল তৈরি করছেন। শিল্পীদের অধিকার সুরক্ষার জন্য তিনি নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। তিনি মনে করেন, নির্বাচনে সবাই তাঁকে ভোট দেবেন। আমি সব সময় ভালোর পক্ষে থাকি , আমি মনে করি ডিপজল ভাই অতিতেও যেমন শিল্পীদের পাশে থেকেছেন, আগামীতেও থাকবেন। নির্বাচনে জিতেই যে শিল্পীর উন্নয়ন করবেন ব্যাপারটা কিন্তু তা নয়। ডিপজল ভাই সব সময়ই আমাদের শিল্পীদের পাশে ছিলেন। আমি বিশ্বাস করি সবাই ডিপজল ভাইকে ভোট দিবে। সম্মানের সহিত ডিপজল ভাই পাশ করে আমাদের পাশে থাকবেন।

রাজবাড়ির সন্তান মিঠুর অভিনয়ে যাত্রা শুরু রাজবাড়ির ‘চারণ থিয়েটার’র মধ্য দিয়ে ১৯৮১ সালে। এরপর ১৯৯০ সালে ঢাকায় এসে ‘ঢাকা থিয়েটার’র সাথে কাজ শুরু করেন। তবে টিভি নাটকে মিঠুর অভিষেক হয় রওশন আরা নীপার নির্দেশনায় ‘গোধূরী লগনে’ নাটকে। নাটকটি ২০০১ সালে বাংলাদেশ টেলিভিশনে প্রচার হয়। একই বছরে তিনি মিনহাজুর রহমানের নির্দেশনায় ‘তমশ’ নাটকেও অভিনয় করেন। পাশাপাশি বিবেশ রায়ের নির্দেশনায় কাহিনীচিত্র ‘ধানের কাব্য’তেও অভিনয় করেন। মিঠু অভিনীত প্রথম ধারাবাহিক নাটক ছিলো ‘সংসার’।

শেয়ার করুনঃ

ফেসবুক পেজ

বিজ্ঞাপন

আর্কাইভ

July 2024
S S M T W T F
 12345
6789101112
13141516171819
20212223242526
2728293031  

স্বত্ব © ২০২৩ মিডিয়া মঞ্চ